1. admin@dailybibartan.com : dailybibartan :
  2. editor@dailybibartan.com : Boni Amin : Boni Amin
খুলনা মহানগরীতে জাতীয় ভিটামিন-এ প্লাস ক্যাম্পেইন পালিত;
মঙ্গলবার, ০২ মার্চ ২০২১, ০৭:০৪ অপরাহ্ন
নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি:
সারাদেশে সংবাদকর্মী নিয়োগ চলছে সরাসরি যোগাযোগ করুন : 01714218173 email: news@dailybibartan.com

খুলনা মহানগরীতে জাতীয় ভিটামিন-এ প্লাস ক্যাম্পেইন পালিত;

তুহিন হোসেন (সাফিন) খুলনা প্রতিনিধি
  • নিউজ প্রকাশ: রবিবার, ৪ অক্টোবর, ২০২০
  • ১৯১ বার
Daily Bibartan khulna news
নিউজটি শেয়ার করুন..
  • 36
    Shares

খুলনাঃ খুলনা সিটি কর্পোরেশনের উদ্যোগে মহানগরী এলাকায় আজ শনিবার জাতীয় ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইন পালিত হচ্ছে। সিটি মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক আজ ৪ই অক্টোবর নগরীর ১২নং ওয়ার্ডস্থ সূর্যের হাসি কিনিকে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে একটি শিশুকে ভিটামিন ক্যাপসুল খাওয়ানোর মধ্য দিয়ে ক্যাম্পেইনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।

উদ্বোধনকালে সিটি মেয়র বলেন, শিশুদের রোগমুক্ত রাখতে সরকার প্রদত্ত টিকাদানের পাশাপাশি নিয়মিত ভিটামিন খাওয়াতে হবে। ভিটামিন ‘এ’ অপুষ্টিজনিত অন্ধত্বসহ শিশু শরীরে বিভিন্ন জটিল রোগের প্রাদুর্ভাব ঘটায়। এর থেকে রক্ষায় সরকার বছরে দুইবার জাতীয়ভাবে ভিটামিন-এ প্লাস ক্যাম্পেইনের আয়োজন করে থাকে। তিনি শিশুদের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় যত্নশীল হওয়ার জন্য অভিভাবকদের প্রতি আহবান জানান এবং একটি শিশুও যেন জাতীয় গুরুত্বপূর্ণ এ কর্মসূচি থেকে বাদ না পড়ে সেদিকে সজাগ দৃষ্টি রাখার জন্য সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি নির্দেশ দেন।

কাউন্সিলর মো: মনিরুজ্জামান-এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তৃতা করেন মেয়র প্যানেলের সদস্য মো: আলী আকবর টিপু, কাউন্সিলর মুন্সী আব্দুল ওয়াদুদ, শেখ মোহাম্মদ আলী, শেখ শামসুদ্দিন আহম্মেদ প্রিন্স, মো: ডালিম হাওলাদার, সংরক্ষিত আসনের কাউন্সিলর পারভীন আক্তার, মনিরা আক্তার, সাহিদা বেগম ও মাজেদা খাতুন। অন্যান্যের মধ্যে পরিবার পরিকল্পনা-খুলনার উপ-পরিচালক মো: আব্দুল আলিম, ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. মো: সাঈদুল ইসলাম, ইউনিসেফ-খুলনার প্রতিনিধি আদি সুচ্যান, স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. স্বপন কুমার হালদার, সহকারী স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. শরীফ শাম্মীউল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। স্বাগত বক্তৃতা করেন কেসিসি’র প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. একেএম আব্দুল্লাহ।

ক্যাম্পেইনে ৬-১১ মাস বয়সী ১০ হাজার ৭’শ ৭৫ জন শিশুকে নীল রঙের এবং ১২-৫৯ মাস বয়সী ৮১ হাজার ৬৭ জন শিশুকে লাল রঙের ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানোর লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে।

কর্মসূচি সফল করতে নগরীর ৩১টি ওয়ার্ডের ৫৮০টি কেন্দ্র, ৮০টি মোবাইল টিম এবং বেসরকারি সংস্থা কর্তৃক পরিচালিত ৫০টি কেন্দ্রের মাধ্যমে ৬২ জন সুপারভাইজারের তত্ত্বাবধানে ১ হাজার ৪’শ ২০ জন স্বেচ্ছাসেবী নিয়োজিত রয়েছে।


নিউজটি শেয়ার করুন..
  • 36
    Shares
এ জাতীয় আরো সংবাদ..

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন